শিরোনামঃ

দেড় যুগ পর পুনরায় আরিচা-কাজিরহাট নৌ রুটে ফেরি চলাচল এর উদ্বোধন-দেশবাংলা খবর২৪

দেড় যুগ পর পুনরায় আরিচা-কাজিরহাট নৌ রুটে ফেরি চলাচল এর উদ্বোধন-দেশবাংলা খবর২৪ 




মুনছুর আহমেদ সুমন, পাবনা জেলা প্রতিনিধি:



নাব্যতা সংকটের কারণে বন্ধ হওয়ার দেড় যুগ পর ফের চালু হলো মানিকগঞ্জের আরিচা - পাবনার কাজিরহাট নৌরুটের ফেরি চলাচল।নতুন করে ১৪ কিঃ মিঃ দীর্ঘ এ রুট চালু হওয়ার ফলে হাজারো মানুষের কর্ম চাঞ্চল্যে শূন্য হয়ে পড়ে থাকা ঐতিহ্যবাহী আরিচা ফেরি ঘাট পুনরায় প্রাণ ফিরে পেতে যাচ্ছে।প্রায় ১৮ বছর পর আজ শনিবার(২৭ শে ফেব্রুয়ারী) আরিচা-কাজীরহাট রুটে ফেরি সার্ভিস পুনরায় চালু করা হলো।২৭ শে ফেব্রুয়ারী(শনিবার) সকাল সাড়ে ১০টার দিকে নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী এ সার্ভিসের উদ্বোধন করেন।এ উপলক্ষে কাজিরহাট ঘাটে জনসমাবেশের আয়োজন করা হয়। 

বিআইডব্লিউটিএ চেয়ারম্যান কমডোর গোলাম সাদেক সভাপতিত্ব করেন। বিশেষ অতিথি শামসুল হক টুকু এমপি, গোলাম ফারুক খন্দকার এমপি, আহমেদ ফিরোজ কবির এমপি, নাঈমুর রহমান দুর্জয় এমপি, সংস্থার অতিরিক্ত সচিব সৈয়দ তাজুল ইসলাম, পরিচালক (প্রশাসন ও মানবসম্পদ) মোহাম্মদ আবু জাফর হাওলাদার প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।উদ্বোধনী ট্রিপে সকাল সাড়ে ১০টার দিকে আরিচা থেকে ১৫টি মালবোঝাই ট্রাক নিয়ে ‘বীরশ্রেষ্ঠ মতিউর রহমান’ নামক রো-রো ফেরি কাজিরহাট রওনা দেয়। ‘বেগম রোকেয়া’ ফেরিতে মন্ত্রীসহ ভিআইপিরা কাজিরহাট পৌঁছান।

বিআইডব্লিউটিএ চেয়ারম্যান কমোডোর গোলাম সাদেক বলেন, আরিচা-কাজিরহাট নৌরুটে তৃতীয় বারের মতো ফেরি চলাচল শুরু করতে যমুনা নদীতে নাব্যতা সংকট রোধে নতুন করে চ্যানেল তৈরিতে ৫ টি ড্রেজার দিয়ে ১২ লাখ ঘন-মিটার বালু ড্রেজিংয়ের মাধ্যমে অপসারণ করা হয়েছে। এছাড়া দুইপারের ঘাট নির্মাণসহ আনুসাঙ্গিক অবকাঠামো উন্নয়নে সরকারের এখন পর্যন্ত খরচ হয়েছে ১৪ কোটি টাকা।প্রথমে দুই পারের দুটি ঘাট দিয়ে দুটি রো-রো ফেরির মাধ্যমে যানবাহনসহ যাত্রী ও পণ্যবাহী যানবাহন পারাপার করা হবে। পরে প্রয়োজন হলে ফেরির সংখ্যা বৃদ্ধি করা হবে বলে জানান তিনি।

এই নৌরুটে ফেরি চলাচল শুরু হওয়ায় চাপ কমবে বঙ্গবন্ধু সেতুর ওপর। পাশাপাশি ভোগান্তি কমবে রাজশাহী, নাটোর, কুষ্টিয়া, পাবনা, ঈশ্বরদীসহ উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলের হাজার হাজার যাত্রীদের।জানা গেছে, পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া রুটে ফেরি সার্ভিস সহজতর করার লক্ষ্যে ২০০২ সালের ১২ মার্চ আরিচা থেকে ৭ কিলোমিটার ভাটিতে পাটুরিয়ায় ঘাট স্থানান্তর করা হয়। পাটুরিয়া থেকে কাজিরহাট রুটে প্রায় ২২ কিলোমিটার দীর্ঘ নৌ-পথে কিছুদিন ফেরি সার্ভিস চালু থাকলেও অনিবার্য কারণে তা বন্ধ করে দেয়া হয়।

No comments

-->