নতুন প্রকাশিতঃ

সাংবাদিক হিলালীর মৃত্যুতে রাজশাহী প্রেসক্লাবের শোক

সাংবাদিক হিলালীর মৃত্যুতে রাজশাহী প্রেসক্লাবের শোক 

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ধারণ করে এগিয়ে চলা জাতীয় দৈনিক ভোরের কাগজের সিনিয়র সাব-এডিটর হিলালী ওয়াদুদ চৌধুরীর মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছে রাজশাহী প্রেসক্লাব।শুক্রবার সকাল ৯টার দিকে রাজধানীর নিজ বাসভবনে স্ট্রোক করলে হাসপাতালে নেয়ার পথে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি (ইন্নালিল্লাহি....রাজিউন)। শুক্রবার হিলালী ওয়াদুদ চৌধুরীকে নিজ জেলা নীলফামারির ডোমারে নেয়া হবে এবং সেখানেই পারিবারিক গোরস্থানে তাকে দাফন করা হবে। 

শনিবার (১৬ জানুয়ারি) অনুষ্ঠিতব্য সাব এডিটরস কাউন্সিলের নির্বাচনে সভাপতি পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছিলেন দৈনিক ভোরের কাগজের সিনিয়র সহ সম্পাদক হিলালী ওয়াদুদ চৌধুরী। তারই অংশ হিসেবে শুক্রবার সকালে জাতীয় প্রেসক্লাবে সাব এডিটরস কাউন্সিলের (ডিএসইসি) সাধারণ সভায় অংশ নিতে তিনি বাসা থেকে বের হচ্ছিলেন।

এমন সময় হঠাৎ বুকে তীব্র ব্যথা ও শ্বাসকষ্ট অনুভব করায় তাকে দ্রুত মালিবাগের খিদমাহ হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানে নেয়ার পথেই তার মৃত্যু হয়েছে বলে জানিয়েছেন চিকিৎসক।মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৪৯ বছর। হিলালী ওয়াদুদ চৌধুরী জাতীয় প্রেসক্লাব ও ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের সদস্য ছিলেন। 

এছাড়া রংপুর বিভাগ সাংবাদিক সমিতির নেতাও ছিলেন তিনি। হিলালী ওয়াদুদ চৌধুরী স্ত্রী ও এক মেয়ে রেখে গেছেন। মেয়ে সামারা হিলালী আইডিয়াল স্কুলের মুগদা শাখার চতুর্থ শ্রেণির শিক্ষার্থী।তিনি দেশের কলম সৈনিক হিসেবে সাহসিকতার সাথে কাজ করে গেছেন তিনি। পেশাগত জীবনে তার হাত ধরে অনেক তরুণ সাংবাদিকতা শিখেছেন।

রাজশাহী প্রেসক্লাব সভাপতি সাইদুর রহমান ও সাধারণ সম্পাদক আসলাম-উদ-দৌলা এক যুক্ত বিবৃতিতে শোক প্রকাশ ও শোকসন্তপ্ত পরিবারবর্গের প্রতি সমবেদনাজ্ঞাপন করেছেন। যুক্ত বিবৃতিতে প্রেসক্লাব নেতৃবৃন্দ বলেন, সাহসী সাংবাদিক হিলালী ওয়াদুদ চৌধুরী বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ প্রকাশে বদ্ধ পরিকর ছিলেন। মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে ধারণ করে কাজ করেছেন তিনি। পেশাগত জীবনে নিয়ে বহু চ্যালেঞ্জ মোকাবেলা করতে হয়েছে তাকে। সাহসী এই কলমযোদ্ধার মৃত্যুতে দেশের অপূরণীয় ক্ষতি হলো বলে জানান তারা।

No comments

-->