শিরোনামঃ

জেলা প্রশাসনের নির্দেশে কম্বল বিতরণ অনুষ্ঠিত।

জেলা প্রশাসনের নির্দেশে  কম্বল বিতরণ অনুষ্ঠিত। 

কাকন সরকার  (শেরপুর) প্রতিনিধি: শেরপুর জেলার নকলা উপজেলায় জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে দরিদ্র, অসহায় শীতার্ত প্রবীণ ও প্রতিবন্ধীদের মাঝে কম্বল বিতরণ করা হয়েছে। এ উপলক্ষ্যে ১৩ জানুয়ারি বুধবার বিকেলে উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে শীত বস্ত্র (কম্বল) বিতরণ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) জাহিদুর রহমান নিজে দরিদ্র, অসহায় শীতার্ত প্রবীণ ও প্রতিবন্ধীদের প্রতি জনের হাতে একটি করে কম্বল তুলেদেন।

এসময় নকলা প্রবীণ ও প্রতিবন্ধী হিতৈষী সংস্থার সভাপতি আসাদুজ্জামান সৌরভ ও অর্থবিষয়ক সম্পাদক আব্দুল্লাহ আল-আমিন, নকলা ইয়্যুথ রিপোর্টার্স ক্লাবের সভাপতি মো. নূর হোসেন ও সহ-সভাপতি নাহিদুল ইসলাম রিজন, উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয়ের অফিস সহকারী কাম কম্পিউটার মুদ্রাক্ষরিক মো. মনিরুজ্জামান মিলন ও মো. আশরাফুল আলম শাহিন, উদ্যোক্তা মো. আতিকুর রহমানসহ বিভিন্ন স্তরের কর্মকর্তা-কর্মচারী, উপজেলার বিভিন্ন এলাকা থেকে আগত দরিদ্র, অসহায় শীতার্ত প্রবীণ ও প্রতিবন্ধী বিভিন্ন বয়সের নারী-পুরুষরা উপস্থিত ছিলেন।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) জাহিদুর রহমান বলেন, জেলা-উপজেলার কোন মানুষ যেন শীতার্ত না থাকেন এর জন্য জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে মান্যবর জেলা প্রশাসক আনার কলি মাহবুব-এর নির্দেশে জেলার প্রতিটি উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে জেলা-উপজেলার দরিদ্র, অসহায় প্রবীণ ও প্রতিবন্ধী শীতার্তদের মাঝে কম্বল ও শীত বস্ত্র বিতরণ করা হয়। এর অংশ হিসেবে ১৩ জানুয়ারি বুধবার বিকেলে জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে ও নকলা উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে এসকল কম্বল বিতরণ করা হয়। তিনি জানান, এরই মধ্যে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা অধিদপ্তরের অর্থায়নে পৌরসভাসহ উপজেলার ৯টি ইউনিয়ন পরিষদের ব্যবস্থাপনায় (শুধুমাত্র বিতরণ কাজ) উপজেলার ৬ হাজার ২৯৬ জন শীতার্তের মাঝে কম্বল বিতরণ করা হয়েছে। 

এর পরেও যেসকল দরিদ্র, অসহায় শীতার্ত প্রবীণ ও প্রতিবন্ধী শীতার্তরা কম্বল বা শীত বস্ত্র পায়নি, প্রয়োজনে বাকি থাকা দরিদ্র, অসহায়, শীতার্ত প্রবীণ ও প্রতিবন্ধদের মাঝে শীত বস্ত্র বা কম্বল বিতরণ করা হবে বলে তিনি জানান।

No comments

-->