শিরোনামঃ

জলঢাকায় নির্বাচনী প্রচারণায় মেয়র প্রার্থী বাবলু'র উন্নয়নকল্পে আগাম প্রতিশ্রুতি

জলঢাকায় নির্বাচনী প্রচারণায় মেয়র প্রার্থী বাবলু'র উন্নয়নকল্পে আগাম প্রতিশ্রুতি

স্টাফ রিপোর্টারঃ আসন্ন তৃতীয় পর্যায়ের পৌরসভার নির্বাচনের অংশ হিসাবে নীলফামারী জেলার জলঢাকা পৌর নির্বাচন শুসম্পূর্ন হবে আগামী ৩০শে জানুয়ারী। নির্বাচনকে কেন্দ্র করে প্রার্থীরা নির্ঘুম রাত কাটিয়ে পৌরশহরের ওয়াডে ওয়াডে নির্বাচনী প্রচারনা অব্যহত রেখেছে। প্রার্থী সমর্থকরা আনন্দ উল্লাস ও প্রতিকের জয়ধ্বনী শ্লোগানে মুখরিত হয়ে পথসমাবেশ ও উঠান বৈঠক করে নির্বাচনে জয়ী হলে উন্নয়ন কল্পে আগাম প্রতিশ্রুতি প্রদান করে ভোট প্রার্থনা করছেন। এরই ধারাবাহিকতায় সকালে পৌর শহরের ৯নং ওয়ার্ড তিনকদমের মসজিদ পাড়ায় আয়োজিত নারিকেল গাছ প্রতিকের সমর্থনে এক নির্বাচনী উঠান বৈঠকের আয়োজন করা হয়। উক্ত উঠান বৈঠকে তৈবার রহমান মাষ্টারের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন আসন্ন পৌর নির্বাচনে জলঢাকা নাগরিক সমাজ সমর্থিত স্বতন্ত্র প্রার্থী সাবেক মেয়র ইলিয়াস হোসেন বাবলু। 

এ সময় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন অধ্যক্ষ মুকুল হোসেন, ব্যবসায়ী ঝরিয়া হোসেন, মিজানুর রহমান প্রমুখ। উক্ত নির্বাচনী প্রচারনায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে নারিকেল গাছ প্রতিক নাগরিক সমাজ সমর্থিত স্বতন্ত্র প্রার্থী ইলিয়াস হোসেন বাবলু জনগনের উদ্দেশ্যে আগাম প্রতিশ্রুতি প্রকাশ করে বলেন, জলঢাকা পৌর শহরটির শান্তিকামী নাগরিকবৃন্দ যে সকল সমস্যা গুলোয় দীর্ঘদিন ভুগছে সে সকল সমস্যা দুর করে পূর্নাঙ্গ নাগরিক সুবিধা প্রদানের মাধ্যমে পৌর শহরটিকে উন্নত শ্রেনীতে অন্তর্ভুক্ত করবো। 

আমি কথা দিচ্ছি পানি নিষ্কাসন ও ড্রেনেজ ব্যবস্থা সম্পূর্ন, পৌর এলাকার রাস্তার রোডলাইট ও বিদ্যুৎ ব্যবস্থা শুসম্পুর্ন, পৌর শহরের কাঁচা রাস্তা পাঁকা করন, খেলার মাঠ সংস্কার, ঈদগাঁহ্ মাঠ, কবরস্থান, মসজিদ, মন্দির ও শ্বশ্বান মেরাতম, পৌর বিনোদন পার্ক, ব্রিজ কালভার্ড নির্মান, পৌর শহরে যাতে বন্যায় পানি এবং কাঁদা সৃষ্টি হতে না পারে তার স্থায়ী সমস্যা সমাধান দুরিকরনের মাধ্যমে জলঢাকা পৌর শহরটিকে এক আধুনিক শহরে রুপান্তরিত করবো ইনশ্বা আল্লাহ্। সমস্যা আমাদের দীর্ঘদিনের তাই পরিকল্পনাও দীর্ঘ। আপনাদের একটি করে যৌথ ভোটে নির্বাচিত হলে আপনাদেরই কাংখিত চাওয়া পাওয়া পুরন করবো। এ সময় তিনি বলেন, কোন দিনের নিজের স্বার্থ সিদ্ধীর জন্য জনপ্রতিনিধিত্ব করি নাই। জনসেবা মুলক কর্মকান্ডে নিজেকে সর্বদা বিলিয়ে দিয়েছি। বিনিময়ে জনসাধারনের ভালোবাসায় আমি জনপ্রতিনিধি স্বীকৃতি পেয়েছি।

No comments

-->