নতুন প্রকাশিতঃ

আসন্ন নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁও পৌরসভার নির্বাচনকে কেন্দ্র করে সংশ্লিষ্ট ভোটারদের মধ্য চলছে নানা কল্পনা-জল্পনা।

 আসন্ন নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁও পৌরসভার নির্বাচনকে কেন্দ্র করে সংশ্লিষ্ট ভোটারদের মধ্য চলছে নানা  কল্পনা-জল্পনা। 

বিশেষ প্রতিনিধি:

নির্বাচনকে সামনে রেখে সম্ভাব্য মেয়র প্রার্থীদেরও চলছে ব্যাপক প্রচার- প্রচারণা। দলীয় মনোনয়ন পেতে কেন্দ্র থেকে তৃণমূল পর্যন্ত দৌড়-ঝাপ অব্যাহত রেখেছেন মনোনয়ন প্রত্যাশীরা। তবে সর্বদিক বিবেচনায় ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগের 'নৌকা' প্রতিকের জন্য মনোনয়ন দৌড়ে এগিয়ে আছেন সোনারগাঁও পৌরসভার মেয়র প্রার্থী ও নৌকা প্রতীকে মনোনয়ন প্রত্যাশি ঐতিহ্যবাহী বদরুন্নেসা সরকারি কলেজ ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি ও বাংলাদেশ যুব মহিলা লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক নাসরিন সুলতানা (ঝরা)। পারিবারিক ও রাজনৈতিকভাবে নাসরিন সুলতানা ঝরা'র রয়েছে এক বর্নাঢ্য রাজনৈতিক ক্যারিয়ার। একাধিক বার কারাবরণ কারী, নির্যাতিত ও ত্যাগী নেত্রী নাসরিন সুলতানা (ঝরা) নির্বাচনকে ঘিরে জনসংযোগ, উঠানবৈঠক সহ বিভিন্ন কার্যক্রম অব্যাহত রেখেছেন। 


মেয়র প্রার্থী নাসরিন সুলতানা ঝরা তার নির্বাচনী প্রচারণা শেষে এক পথসভায় বলেছেন, "বিএনপি জামাত জোট সরকার আমলে অনেক নির্যাতনের শিকার হয়েছি। মিথ্যা মামলায় একাধিকবার কারা বরণ করেছি। বিএনপি জামাতের সন্ত্রাসীদের হাতে মার খেয়েছি, পুলিশের মার খেয়েছি। রাজপথে অনেক শ্রম ও ঘামের বিনিময়ে আজকে এই পর্যায়ে এসেছি"। 


তিনি আরও বলেন, আমার বিশ্বাস রাজপথের শ্রম, ঘাম ও ত্যাগের যদি মূল্যায়ন থাকে এবং আওয়ামী লীগের অনেকের মুখে শুনেছি, রাজপথ কখনো বেঈমানী করেনা, আমিও তাই বিশ্বাস করি। সেই রাজপথ যদি বেঈমানী না করে রাজপথের শ্রম নির্যাতন ঘাম ত্যাগের মুল্যায়ন যদি থাকে ইনশাহআল্লাহ্ জননেত্রী শেখ হাসিনা আমাকে নৌকা প্রতীক দিবেন।


ওই সময় তিনি আরও বলেন, যারা ভাল করে লেখাপড়া করে তাদেরকে নকল করে পাশ করতে হয়না। জীবনে কোনদিন আমাকে নকল করে পাশ করতে হয়নি। দীর্ঘ ২৭ বছর রাজনীতির মাঠে ছিলাম, ২৭টি বছর রাজপথে ছিলাম। জানপ্রাণ দিয়ে আওয়ামী লীগের রাজনীতি করে আসছি। আমার বিশ্বাস সেই শ্রমের বিনিময়ে হলেও দীর্ঘ ২৭ বছর পর আমার মুল্যায়ন আমি পাবো। কারন? জননেত্রী শেখ হাসিনা কখনও টাকার কাছে বিক্রি হয়না। বঙ্গবন্ধুর কন্যা টাকার বিনিময়ে কোনদিন মনোনয়ন দিবে না। উনি বুঝে শুনে জেনেই মনোনয়ন দিবেন। ‘আমার রাজনৈতিক অভিভাবক একমাত্র জননেত্রী শেখ হাসিনা। এছাড়া আমার আর কোন রাজনৈতিক অভিভাবক নেই। তাই আল্লাহর উপর আমার ভরসা, জননেত্রী শেখ হাসিনার উপর আমার বিশ্বাস আছে, তিনি অবশ্যই আমাকে নৌকা প্রতীক দিবেন।

No comments

-->